রবিবার

৩রা মার্চ, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ

১৯শে ফাল্গুন, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

নগরীতে রেস্তোরাঁয় রাঁধুনীর আত্মহত্যা

Paris
Update : শনিবার, ৫ ডিসেম্বর, ২০২০

স্টাফ রিপোর্টার : রাজশাহীতে রেস্তোরাঁয় সেখানকার প্রধান রাঁধুনী গলায় ফাঁস দিয়ে ‘আত্মহত্যা’ করেছেন। শুক্রবার বেলা সাড়ে ৩টার দিকে রাজশাহী মহানগরীর বোয়ালিয়া থানার নিউমার্কেট এলাকার ‘দ্য হাইড আউট’ ক্যাফেতে এই ঘটনা ঘটে। নিহত ওই রেস্তোরাঁ কর্মীর নাম শাহীন আলম শুভ (২৮)। রাজশাহীর বাগমারা উপজেলার তাহেরপুর পৌর এলাকার নূরপুর মহল্লায় তার বাড়ি। বাবার নাম মাহবুবুর রহমান। শুভ রাজশাহী কলেজ থেকে স্নাতক শেষ করেছেন।

রেস্তোরাঁ মালিকের দাবি, প্রেমঘটিত কারণে শুভ গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছেন। রেস্তোরাঁটির মালিকের নাম জুবায়ের হোসেন। তিনি জানান, তার রেস্তোরাঁ একটি ভবনের তৃতীয় তলায়। চতুর্থ তলায় রান্নার কাজ চলে। আর পঞ্চম তলায় থাকেন রেস্তোরাঁ কর্মীরা। সেখানেই ঘরে গলায় ফাঁস দেন শুভ। জুবায়ের বলেন, বেলা সাড়ে ৩টার দিকে এক তরুণী তার রেস্তোরাঁর কাওসার হোসেন নামে এক ওয়েটারকে ফোন করেন। ওই তরুণী তাকে বলেন, শুভ কিছু একটা দুর্ঘটনা ঘটাতে পারে। তিনি ওই ওয়েটারকে দ্রুত শুভর কাছে যেতে বলেন।

কাওসার গিয়ে দেখেন ঘরের দরজার বন্ধ। এ সময় কয়েকজন মিলে দরজাটি ভাঙা হয়। এরপর শুভকে সিলিং থেকে নামানো হয়। রেস্তোরাঁ মালিক বলেন, তখনও শ্বাস-প্রশ্বাস চলছিল। তাই আমরা তাকে দ্রুত রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) হাসপাতালের জরুরি বিভাগে নিয়ে যাই। সেখান থেকে হাসপাতালের ৩২ নম্বর ওয়ার্ডে পাঠানো হয়।

এখানে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। এরপর আমরা পুলিশ এবং শুভর পরিবারকে বিষয়টি জানাই। আর মরদেহ মর্গে রাখা হয়। সন্ধ্যা ৬টার দিকে রাজশাহী মহানগর পুলিশের (আরএমপি) গোয়েন্দা শাখার (ডিবি) একটি দল রেস্তোরাঁ এবং কর্মীদের থাকার স্থানগুলো পরিদর্শন করছিলেন। তবে ঘটনার বিষয়ে কিছুই জানেন না বলে জানিয়েছেন নগরীর বোয়ালিয়া থানার ওসি নিবারন চন্দ্র বর্মন।


আরোও অন্যান্য খবর
Paris