এফএনএস : ঈমানহীন কোনো নেক আমলই গ্রহণযোগ্য নয়। তাই মুমিন মুসলমানের জীবনে ঈমানের গুরুত্বই সবচেয়ে বেশি। এজন্য ঈমানের হেফাজত খুবই জরুরি। ঈমানের হেফাজতে প্রখ্যাত আবেদ হজরত সাহল বিন আব্দুল্লাহ তাসতারি রাহিমাহুল্লাহ কিছু আমলের কথা বলেছেন। কী সেসব আমল? প্রখ্যাত ইসলামিক স্কলার ও আবেদ হজরত সাহল বিন আবদুল্লাহ তাসতারি (রাহিমাহুল্লাহ) বলেন, ‘(ঈমানের হেফাজতে) আমাদের কিছু মূলনীতি রয়েছে। তাহলো-

১. আল্লাহর কিতাবকে মজবুতভাবে আঁকড়ে ধরা।
২. রাসুলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামের সুন্নাতের অনুসরণ করা।
৩. হালাল খাবার খাওয়া।
৪. অন্যকে কষ্ট দেওয়া থেকে বিরত থাকা।
৫. যাবতীয় গুনাহ থেকে বেঁচে থাকা।
৬. আল্লাহর কাছে তাওবা করা। এবং
৭. (আল্লাহ ও মানুষের) হকগুলো যথাযথভাবে আদায় করা।’ (হিলয়াতুল আউলিয়া)

উল্লেখিত প্রতিটি আমলই কোরআন-সুন্নাহ দ্বারা প্রমাণিত। সুতরাং মুমিন মুসলমানের জন্য অমূল্য রত্ন ঈমানের হেফাজতে গুরুত্বের সঙ্গে এ আমলগুলো যথাযথভাবে আদায় করা জরুরি।
আল্লাহ তাআলা মুসলিম উম্মাহকে উল্লিখিত আমলগুলো করার মাধ্যমে নিজেদের ঈমানকে হেফাজত করার তাওফিক দান করুন। আমিন।