এফএনএস : পাকিস্তানি ড্রোনের মাধ্যমে আরও একটি চোরাচালানের চেষ্টা নস্যাৎ করার দাবি করেছে ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনী (বিএসএফ)। টুইটারে দেওয়া এক পোস্টে বিএসএফ পাঞ্জাবের ফ্রন্টিয়ারের পক্ষ থেকে বলা হয়, পাকিস্তান থেকে আসা একটি ড্রোন গুলি করে ভূপাতিত করেন সেনা সদস্যরা। ড্রোনটিতে ১০ কেজি হেরোইন ছিল। খবর এনডিটিভি। অমৃতসর বিএসএফের ডিআইজি ভূপেন্দর সিং বলেন, ‘সোমবার (৯ মে) রাত সোয়া ১১টার দিকে আমাদের সেনারা কাঁটাতারের বেড়ার ওপর দিয়ে উড়ে আসা একটি ড্রোনের শব্দ শুনতে পায় এবং সেটি লক্ষ্য করে ৯ রাউন্ড গুলি ছোড়ে।

পরে সেটি ভূপাতিত হয়।’ ভূপেন্দর আরও বলেন, “গুলি করে নামানোর পর আমরা একটি ‘হেক্সাকপ্টার ড্রোন’ উদ্ধার করেছি এবং সেটি থেকে প্রায় ১০ কেজি হেরোইন জব্দ করেছি। ড্রোনটি পাকিস্তানের দিক থেকে এসেছিল।” এর আগে গত ২৯ এপ্রিল অমৃতসর সেক্টরের কাছে ধানোয়ি কালান গ্রামে চীনের একটি ড্রোন গুলি করে ভূপাতিত করে বিএসএফ। এ ছাড়া অমরনাথ যাত্রার আগে জম্মুর সাম্বা জেলায় একটি ‘সন্দেহজনক সুড়ঙ্গ’ মুখের সন্ধান পায় ভারতের সীমান্তরক্ষী বাহিনী। গত মাসে রাজ্যের সীমান্ত এলাকা পরিদর্শন করেন পাঞ্জাবের গভর্নর বনওয়ারি লাল পুরোহিত।

এ সময় কেন্দ্র ও রাজ্যের নিরাপত্তা বাহিনীর কর্মকর্তাদের সঙ্গে আলোচনায় ড্রোনের মাধ্যমে অস্ত্র, গোলাবারুদ এবং মাদক চোরাচালান রোধে নিরাপত্তা সংস্থাগুলোর মধ্যে সমন্বয় বাড়ানোর পরামর্শ দেন গভর্নর। সীমান্তবর্তী গ্রামগুলোর পঞ্চায়েতদের সঙ্গেও বৈঠক করেন বনওয়ারি লাল পুরোহিত। সম্প্রতি ভারত-পাকিস্তান সীমান্তে ড্রোনের মাধ্যমে মাদক পাচারের তথ্য দিলে ১ লাখ রুপি পুরস্কারের ঘোষণা দেয় বিএসএফ।