এফএনএস : আজ শেষ হচ্ছে বঙ্গবন্ধু টি-টুয়েন্টি কাপের লিগ পর্বের ম্যাচ। পাঁচ দলের মধ্যে ইতোমধ্যে প্লে-অফ নিশ্চিত করেছে তিনটি দল। তবে এখনো প্লে-অফ নিশ্চিত হয়নি মিনিস্টার রাজশাহী ও ফরচুন বরিশালের। এই দু’দলের একটি দল প্লে-অফে খেলার সুযোগ পাবে। তাই প্লে-অফে খেলতে হলে, নিজেদের শেষ ম্যাচে আজ জিততেই হবে দু’দলকে। সেই সাথে রান রেটে একে অপরের চেয়ে এগিয়েও থাকতে হবে রাজশাহী-বরিশালকে। আজ দিনের প্রথম ম্যাচে রাজশাহী মুখোমুখি হবে গাজী গ্রুপ চট্টগ্রামের। ম্যাচটি শুরু হবে দুপুর ১২টা ৩০ মিনিটে। দিনের দ্বিতীয় ও শেষ ম্যাচে বেক্সিমকো ঢাকার প্রতিপক্ষ বরিশাল।

এ ম্যাচটি শুরু হবে বিকেল ৫টা ৩০ মিনিটে। দু’টি ম্যাচই হবে মিরপুর শেরে বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে। তাই রাজশাহী-বরিশালের জন্য লিগ পর্বের শেষ ম্যাচ দু’দলের জন্য অলিখিত ফাইনাল। রাজশাহী-বরিশাল বাদে প্লে-অফ নিশ্চিত করেছে চট্টগ্রাম-জেমকন খুলনা ও ঢাকা। ৭ ম্যাচে ১২ পয়েন্ট চট্টগ্রামের। ৮ করে পয়েন্ট খুলনা-ঢাকার। ১টি ম্যাচ কম খেলেছে ঢাকা। লিগ পর্বে ৮ ম্যাচ শেষ খুলনার। ৪ করে পয়েন্ট রাজশাহী ও বরিশালের। -০.২৬৩ রান রেট নিয়ে এগিয়ে রাজশাহী।।

বরিশালের রান রেট -০.৪৩৫। নিজ-নিজ খেলায় রাজশাহী-বরিশাল জিতলে, দু’দলেরই পয়েন্ট হবে সমান ৬ করে। তখন রান রেটে এগিয়ে থাকা দল শেষ দল হিসেবে প্লে-অফের টিকেট পাবে। আবার দু’দল নিজেদের ম্যাচে হারলে, দু’দলেরই ৪ করে পয়েন্ট থাকবে। তখনও রান রেটের হিসাব করা হবে। আর যদি এক দল জিতে, আর এক দল হারে, তবে পয়েন্টের হিসেবে এগিয়ে থাকা দলই প্লে-অফ খেলবে। রাজশাহীর দু’টি জয় এসেছে প্রথম দু’ম্যাচেই। এরপর টানা পাঁচটি ম্যাচ হেরেছে রাজশাহী। প্রথম ম্যাচে ২ রানে ঢাকাকে ও দ্বিতীয় ম্যাচে খুলনাকে ৬ উইকেটে হারিয়েছে রাজশাহী। চট্টগ্রামের কাছে প্রথম পর্বের ম্যাচে ১ রানে হার মানে শান্তর দল। তামিমের ইকবালের দল বরিশালের দু’টি জয়ই এসেছে রাজশাহীর বিপক্ষে।

প্রথম পর্বে ৫ উইকেটে ও ফিরতি পর্বে ৮ উইকেটে জয় পায় বরিশাল। প্রথম পর্বে ঢাকার কাছে ৭ উইকেটে হারে বরিশাল। দুর্দান্ত শুরুর পরও প্লে-অফে খেলা নিয়ে সংশয় রাজশাহীর। তবে লিগ পর্বে নিজেদের শেষ ম্যাচ জিতে প্লে-অফে খেলতে মরিয়া রাজশাহী। তেমনটাই বললেন এবারের আসরে রাজশাহীর হয়ে মাত্র দু’টি ম্যাচ খেলা অলরাউন্ডার মোহাম্মদ সাইফউদ্দিন। তিনি জানান, ‘ব্যাটসম্যানদের বাড়তি আত্মবিশ্বাস আছে। বোলাররা ভালো করতে পারছে না। তবে ইনশাআল্লাহ তারাও ভালো করবে। খারাপের পর ভালো আসে, এটার জন্য আমি নিজেও অপেক্ষা করছি। ভালো কিছু হবে আশা করি।’

প্রতিপক্ষ চট্টগ্রামকে শক্তিশালী দল বলছেন সাইফউদ্দিন। তিনি বলেন, ‘তারা অনেক শক্তিশালী দল। তারা খুব ভালো খেলছে। ব্যাটিং-বোলিং-ফিল্ডিং তিন বিভাগেই ভালো করছে।’ ইনজুরির কারণে টুর্নামেন্টের প্রথম থেকে খেলতে পারেননি সাইফউদ্দিন। খুলনা-বরিশালের বিপক্ষে খেলেছেন তিনি। ব্যাট হাতে ৪ রান ও বল হাতে ২ উইকেট নেন সাইফউদ্দিন। আজকের ম্যাচে ভালো করতে চান সাইফউদ্দিন। তিনি বলেন, ‘আশা ছিলো, এই টুর্নামেন্টে ভালো কিছু করবো। কিন্তু ইনজুরির কারণে সম্ভব হয়নি। তারপরও চেষ্টা করছি নিজের শতভাগ দেয়ার।’