এফএনএস : ভারতের পশ্চিমবঙ্গে সন্দেহভাজন এক জেএমবি (জামায়াতুল মুজাহিদীন বাংলাদেশ) সদস্যকে গ্রেপ্তার করেছে কলকাতা পুলিশের স্পেশাল টাস্কফোর্স (এসটিএফ) ইউনিট। দেশটির গণমাধ্যম সূত্রে এ তথ্য পাওয়া গেছে। গত বৃহস্পতিবার রাতে বীরভূম জেলায় অভিযান চালিয়ে ৫০ বছর বয়সী ওই ব্যক্তিকে গ্রেপ্তার করা হয় বলে জানিয়েছেন স্থানীয় এক জ্যেষ্ঠ পুলিশ কর্মকর্তা। তিনি জানান, সন্দেহভাজন ব্যক্তি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে উগ্রবাদী চিন্তা ও অমুসলিমদের প্রতি ঘৃণা ছড়াতেন বলে অভিযোগ রয়েছে। তার মোবাইল ফোন ও পাসপোর্ট জব্দ করা হয়েছে।

অভিযুক্ত ওই লোকের মালিকানাধীন একটি ছাপাখানা থেকে বেশ কিছু বই ও মৌলবাদী নথিপত্র উদ্ধার করা হয়েছে বলেও জানান এ পুলিশ কর্মকর্তা। তিনি বলেন, ওই ব্যক্তি জেএমবির সঙ্গে জড়িত বলে ধারণা করা হচ্ছে। তার যোগাযোগের বিষয়ে আরও তথ্য বের করার চেষ্টা করছি। গতকাল শুক্রবার গ্রেপ্তার ব্যক্তিকে আদালতে হাজির করা হবে। ভারতীয় সংবাদমাধ্যমের তথ্যমতে, এর আগে হুগলির ডানকুনি থেকে জেএমবির এক শীর্ষ নেতাকে গ্রেপ্তার করেছিল এসটিএফ।

তার নাম রেজাউল করিম ওরফে কিরণ। কলকাতায় জেএমবির অন্য সদস্যদের বিস্ফোরক সরবরাহ ও আশ্রয় দেওয়ার কাজ করতেন তিনি। গত ২৯ মে মুর্শিদাবাদের জঙ্গিপুর থেকে গ্রেপ্তার করা হয় আবদুল করিম নামে জেএমবির আরেক শীর্ষ নেতাকে। তাকে জিজ্ঞাসাবাদ করেই রেজাউলের সন্ধান পাওয়া গিয়েছিল। সূত্র: পিটিআই, জি নিউজ।